শনিবার ২৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২৬শে জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

গাজীপুরে স্কুলছাত্রী হত্যায় ২ জনের ফাঁসি

প্রকাশঃ ০৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬

স্টাফ রিপোর্টারঃ গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কোনাবাড়ী এলাকায় এক স্কুলছাত্রী হত্যার দায়ে ২ জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে এ ঘটনায় জড়িত আরেকজনকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (০৯ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে গাজীপুর জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক এ কে এম এনামুল হক এ রায় দেন।

ফাঁসিদণ্ড প্রাপ্তরা হলেন- ফরিদপুরের ডাঙ্গী গ্রামের আক্কাছ আলীর ছেলে মো. সুমন শেখ ও সিরাজগঞ্জের ধুকুরিয়াবেড়া গ্রামের মৃত গোলাম মুর্তজার ছেলে আবদুল আলীম। আর নিহত ওই স্কুলছাত্রীর হত্যা ও মরদেহের তথ্য গোপন করার দায়ে আবদুল আলীমের স্ত্রী শেফালী বেগমকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

আদালত সূত্রে জানা যায়, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কোনাবাড়ী এলাকার মো. আক্তারুজ্জামানের স্কুল পড়ুয়া মেয়ে মারিয়াকে তাদের বাড়ির কেয়ারটেকার মো. সুমন ও দারোয়ান আবদুল আলীম ২০১৪ সালের ১৪ জুলাই গলায় ফাঁস লাগিয়ে হত্যা করে।

একপর্যায়ে তারা মরদেহ গুম করে রাখে। অনেক খোঁজাখুঁজির পর মরদেহ উদ্ধার করে তাদের দুইজনকে জিজ্ঞাসা করা হলে হত্যার বিষয়টি স্বীকার করেন তারা।

ঘটনার পরদিন ফারিয়ার বাবা আক্তারুজ্জামান বাদী হয়ে জয়দেবপুর থানায় একটি মামলা করেন। এ ব্যাপারে পুলিশ আসামিদের বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি আদালতে অভিযোগ জমা দেয়।

দীর্ঘ স্বাক্ষ্যগ্রহণ ও উভয়পক্ষের শুনানি শেষে মঙ্গলবার (০৯ ফেব্রুয়ারি) আদালতের বিচারক এ রায় দেন।

রায় ঘোষণার সময় বাদীসহ দুই আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। অপর এক আসামিনের পর থেকে পলাতক রয়েছেন।

আদালতে বাদী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন পিপি অ্যাডভোকেট হারিছ উদ্দিন। তিনি বলেন, দুইজনের ফাঁসি ও প্রত্যেককে ১০হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। একই সঙ্গে তথ্য গোপন করার দায়ে একজনকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়।