রবিবার ২৩শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২০শে জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

নিজেদের সংকট ঢাকতেই ইসিকে দোষারোপ বিএনপির

প্রকাশঃ ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬

নিজেরদের সাংগঠনিক সংকট আড়াল করতে সংবাদ সম্মেলন ডেকে বিএনপি নির্বাচন কমিশনকে (ইসি) দোষারোপ করছে বলে মন্তব্য করেছেন খাদ্য মন্ত্রী কামরুল ইসলাম।
শনিবার দুপুরে শিল্পকলা একাডেমিতে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি প্রয়াত আলমগীর কুমকুমের স্মরণে সংগঠনের পক্ষ থেকে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
তিনি বলেন, ‘সামরিক ছাউনিতে দল গঠন করে এবার দলীয় প্রতীকে স্থানীয় নির্বাচন করতে গিয়ে বিএনপি হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছে তাদের সঙ্কটটা কোথায়। তৃণমূলে নির্বাচন করতে গিয়ে বিএনপি মনোনয়ন দেয়ার মত নেতৃত্ব খুঁজে পাচ্ছে না। কারণ নেতৃত্ব দেয়ার মত যোগ্য নেতা তৃণমূলে বিএনপি তৈরি করতে পারেনি। ইউপিতে প্রার্থী খুঁজে পাচ্ছে না বলেই নিজেদের সাংগঠনিক সংকট আড়াল করার জন্য রোজই তারা (বিএনপি) সংবাদ সম্মেলন করে নির্বাচন কমিশন ও সরকারকে দোষারোপ করছে।’
তিনি বলেন, ‘দলীয় প্রতীকে নির্বাচনের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপিকে তৃণমূলে নেতৃত্ব তৈরি করার সুযোগ করে দিয়েছে।’
তিনি বিএনপি নেতৃবৃন্দকে আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘অহেতুক নির্বাচনকে বিতর্কিত না করে তৃণমূলে দল গোছান। নির্বাচনকে বিতর্কিত বা প্রশ্নবিদ্ধ করার চেষ্ঠা করবেন না।’
যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের প্রসঙ্গ টেনে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ‘যুদ্ধাপরাধীদের বাঁচাতে এখনো অনেকে ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছেন। যুদ্ধাপরাধীদের বিচার চলছে। অনেকের ফাঁসি হয়েছে। কুখ্যাত যুদ্ধাপরাধী নিজামী এখন কারাগারে মৃত্যুর প্রহর গুনছে। মার্চের আট তারিখে মীর কাসেম আলীর ট্রাইবুনালে দেয়া ফাঁসির রায় আপিল বিভাগে বহাল থাকবে এটাই জাতি প্রত্যাশা করে।’
তিনি বলেন, ‘একটা বিষয়ে আমাদের সকলকে সতর্ক থাকতে হবে- সেটা হলো মীর কাসেম আলী অঢেল সম্পদের মালিক ছিলেন। তাদের বিদেশি লবিস্টও রয়েছে। কাজেই রায় বানচাল করার জন্য দেশীয় ও আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্র হতে পারে। এজন্য দেশবাসীকে সজাগ থাকতে হবে।’
2015_12_05_16_13_13_ERBEWN1JhP3xkJQVgEcNnH2oyFTAiS_originalবঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি অভিনেতা ফারুকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ফয়েজ উদ্দিন মিয়া, অভিনেতা ড্যানি সিডাক, লেখক ও নাট্য নির্দেশক ফালগুনী হামিদ প্রমুখ।