শনিবার ২৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২৬শে জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

আস্থা আছে বলেই ২৬ ইউপিতে প্রতিদ্বন্দ্বী নেই

প্রকাশঃ ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬

নিজস্বপ্রতিবেদকঃ ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে প্রথম ধাপে আওয়ামী লীগের ২৬ চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন। বিএনপি ও ২০ দলীয় জোট নির্বাচনে যাওয়ার পরও কীভাবে এতোগুলো ইউপিতে কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী না দাঁড়ানোর যুক্তি তুলে ধরেছেন দলটির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ।

তার দাবি, সরকারের প্রতি জনগণের আস্থার প্রতিফলন ঘটেছে। আওয়ামী লীগের নেতৃত্বের প্রতি আস্থা রেখে অনেক জায়গায় আওয়ামী লীগের প্রার্থীর বিরুদ্ধে কেউ দাঁড়ায়নি।

রোববার দুপুরে ধানমন্ডিস্থ আওয়ামী লীগের সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ।

উল্লেখ্য, প্রথমবারের মতো দলীয়ভাবে অনুষ্ঠেয় ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের প্রথম দফায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত ২৬ চেয়ারম্যান পদপ্রার্থীর কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী নেই। এসব ইউপিতে আওয়ামী লীগ প্রার্থীদের প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপিসহ অন্য প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে।

এদিকে দ্বিতীয় ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে দলীয় মনোনিত ৬৭২ ইউনিয়নের প্রার্থীদের নামের তালিকা ঘোষণা করেছে আওয়ামী লীগ।
নির্বচনে অংশগ্রহনেচ্ছু বিএনপির প্রার্থীদের মনোনয়ন জমা দিতে বাধা দেয়া হচ্ছে এমন অভিযোগ সম্পর্কে জানতে চাওয়া হলে হানিফ বলেন, ‘এসব কথার কোনো ভিত্তি নেই। সরকারের বিরুদ্ধে নালিশ ছাড়া তাদের হাতে আর কিছু নেই। বিএনপি নালিশী দলে পরিণত হয়ে গেছে।’

এদিকে রোববার দ্বিতীয় ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৬৮৪ ইউপির মধ্যে ১২টি স্থগিত থাকায় ৬৭২টিতে প্রার্থীদের নামের তালিকা প্রকাশ করেছে আওয়ামী লীগ। পাশাপাশি তৃতীয় ধাপের মনোনয়নের জন্য জেলা উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায় থেকে নামের তালিকা ৮ মার্চের মধ্যে পাঠানোর জন্য নির্দেশও দেয়া হয়ে বলে জানান হানিফ।
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে হানিফ বলেন, পৌর নির্বাচনে যারা দলের বাহিবে গিয়ে নির্বাচনে অংশ নিয়েছে তাদের দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। ইতোমধ্যে শোকজ নোটিশ পাঠানো হয়েছে। পরবর্তী কার্যনির্বাহী সভায় তাদের স্থায়ীভাবে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। একইভাবে যারা ইউপি নির্বাচনে দলের মনোনয়নের বাইরে গিয়ে নির্বাচনে যাবে তাদেরও দল থেকে বহিষ্কার করা হবে।
2015_12_07_15_51_24_zlXPM78RUUT3zmMn8CgoV8WcM9cXFh_originalসংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, দীপু মনি, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম, আহম্মদ হোসেন , দপ্তর সম্পাদক আব্দুস সুবহান গোলাপ, কার্যসনির্বাহী সদস্য, সুজিত রায় নন্দি ও এনামুল হক শামীম।