রবিবার ২৩শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২০শে জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

বাসের ধাক্কায় ৪ যুবলীগ কর্মী নিহত, অগ্নিসংযোগ

প্রকাশঃ ১৭ মার্চ, ২০১৬

নিজস্ক প্রতিবেদক: বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শেষে বাড়ি ফেরার পথে মেহেরপুরে পিকনিকের বাসের ধাক্কায় চার যুবলীগ কর্মী নিহত হয়েছেন। এতে আরও কমপক্ষে ১৫ কর্মী আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় উত্তেজিত জনতা বাসটিতে আগুন ধরিয়ে দেয়।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় চুয়াডাঙ্গা শহর থেকে নছিমনযোগে বাড়ি ফেরার পথে মেহেরপুর-মুজিবনগর সড়কের চকশ্যামনগর নামক স্থানে দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন মুজিবনগর উপজেলার বাগোয়ান গ্রামের আনিসুর রহমান আনিস (৪০), নজমুল হোসেন (৩৫), টুকু মিয়া (২৮) ও তুফান (৩৫)। আহতদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় পাঁচ জনকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) ও দুই জনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। তবে তাদের মধ্যে একজন মারা গেছেন বলে জানা গেলেও বিষয়টি নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে বিভিন্ন গ্রাম থেকে বিকেলে জেলা শহরের আসেন যুবলীগ নেতাকর্মীরা। অনুষ্ঠান শেষে নছিমনযোগে বাড়ি ফিরছিলেন তারা। পথে মেহেরপুর-মুজিবনগর সড়কের চকশ্যামনগর নামক স্থানে পৌঁছলে মুজিবনগর থেকে ফেরা একটি পিকনিকের বাস নসিমনটিকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই এক যুবলীগ কর্মী নিহত হন। আহত অবস্থায় ১৫-২০ জনকে মেহেরপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে আরও তিন যুবলীগ কর্মীকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। আহতদের মধ্যে ১৫ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

এদিকে, এ ঘটনায় উত্তেজিতা জনতা বাসটিতে অগ্নিসংযোগ ও ভাঙচুর করে। তবে পালিয়ে রক্ষা পান বাসের যাত্রীরা। খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

মেহেরপুরের সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) মোস্তাফিজুর রহমান 2015_11_15_19_21_02_c1aGXR91CYq9GehdqTraNZpZcUiufJ_originalসোনারবাংলা৭১.কমকে জানান, বাসটি পাবনা জেলা থেকে পিকনিকে এসেছিল বলে ধারণা করছেন তিনি। দুর্ঘটনার পর বাসের যাত্রী ও চালক পালিয়ে গেছেন। বর্তমানে পরিস্থিতি তাদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।