শনিবার ২৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২৬শে জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

আ.লীগ-বিদ্রোহী গোলাগুলি, পুলিশসহ আহত ৩০

প্রকাশঃ ১৯ মার্চ, ২০১৬

নিজস্ক প্রতিবেদক: ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন নিয়ে পটুয়াখালীর বাউফলে আওয়ামী লীগ ও বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় উভয়পক্ষের গোলাগুলিতে এক পুলিশ সদস্য গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ৩০ জন আহত হয়েছেন।

শনিবার দুপুরে উপজেলার নওমালা ইউনিয়নের নগরেরহাট এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

প্রত্যাক্ষদর্শীরা জানান, দুপুর থেকে শোডাউন করার জন্য আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী কামাল হোসেন বিশ্বাস নগরহাটের মূল সড়কে লোকজন নিয়ে অবস্থান নেন। এজন্য নগরেরহাট বাজারের সড়কটি দুপুর থেকেই অবরোধ করে রাখেন তারা। এক পর্যায়ে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হাওলাদারও তার লোকজন নিয়ে শোডাউনের জন্য ওই এলাকায় যান। এতে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে পুলিশ দুই পক্ষকে সরিয়ে দেয়।

পরে কামালের লোকজন ইটপাটকেল ছোড়া শুরু করলে পাল্টা জবাব দেয় বিদ্রোহী প্রার্থী শাহাজাদার লোকজন। এ সময় দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া শুরু হলে নগরহাট এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ২৫ জন আহত হন। উত্তেজিত কামালের লোকজন গুলি ছুড়লে মাহাবুব নামে এক পুলিশ কনস্টেবল গুলিবিদ্ধ হন। এছাড়া পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে করতে গিয়ে খায়রুল, ফয়সাল, হাসানুজ্জামান ও খলিলুর রহমান নামে আরও চার পুলিশ সদস্য আহত হন। পরে পুলিশ ও উপজেলা প্রশাসন দীর্ঘ সময় চেষ্টা চালিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

আহত মাহাবুবের ডান হাত থেকে একটি গুলি বের করেছে বাউফল স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকরা। বাকি আহত পুলিশ সদস্যদের ওই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী শাহাজাদা হাওলাদার জানান, জনসমর্থন না থাকায় বহিরাগত সন্ত্রাসীদের কামাল হোসেন ভাড়া করে এনে এলাকার শান্ত পরিবেশকে অশান্ত করে তুলেছেন। পরাজয় নিশ্চিত জেনে তার সমর্থকদের বাড়িতে হামলা ও ভংচুর করছেন।

পাল্টা অভিযোগ করে কামাল হোসেন জানান, শাহাজাদা এলাকায় নির্বাচনের নামে সন্ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেছেন।

পটুয়াখালীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (এএসপি) মো. ফয়েজ আহমেদ 2016_03_19_21_50_50_kF6uPAkVKCmDzYOndDvt3WZvNdaBQ6_originalসোনারবাংলা৭১.কমকে জানান, পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। তবে যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। রোববার থেকে যেকোনো ধরনের সহিংসতা এড়াতে ১৮ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন করা হবে। সুষবঠু নির্বাচনের স্বার্থে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সার্বক্ষণিক প্রস্তুত রয়েছে বলেও জানান তিনি।